১০ টি সেরা অনলাইনে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

অনলাইনে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট সম্পর্কে জানুন

বর্তমানে সবাই চাকরি বা কোন কাজ সহজে না পাওয়ার জন্য অনলাইনে টাকা ইনকাম করতে চায়। কিন্তু সঠিক তথ্য ও গাইড না পাওয়ার জন্য অনলাইন ইনকাম শুরু করতে অনেক সময় নষ্ট হয়।

কারণ আমিও একটা সময় অনলাইনে টাকা ইনকাম করার বিষয় জানতে প্রচুর সময় খরচ করেছি। সেজন্যে অনলাইনে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট এবং অ্যাপ সম্বন্ধে বিভিন্ন ধারণা হয়েছে।

সেই সাথে আমি এটাও বুঝেছি যে কেউ তার দক্ষতাকে কাজে লাগিয়ে অনলাইনে বেশ ভালো পরিমাণে টাকা ইনকাম করে নিতে পারে।

সেজন্য যেই ওয়েবসাইটগুলি থেকে আমার বেশ ভালোমানের ইনকাম হয়েছে সেগুলি আপনার সাথে শেয়ার করেছি।

এবং আমি যে ওয়েবসাইটগুলি আপনার সাথে শেয়ার করব সেগুলি পকেট মানি ইনকাম সাইট নয়। এই সাইটগুলিতে কাজ করে আপনি আপনার নিজস্ব ব্যবসা গড়ে তুলতে পারবেন। আপনি এই সকল ওয়েবসাইটে পার্ট টাইম এবং ফুল টাইম কাজ করে ইনকাম করতে পারবেন।

টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট
টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

Table of Contents

টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট 2022

ওয়েবসাইটওয়েবসাইটে যুক্ত হবার লিঙ্ক
ব্লগারblogger.com
ইউটিউবyoutube.com
অ্যামাজন অ্যাসোসিয়েটhttps://affiliate-program.amazon
সুটারস্টকhttps://submit.shutterstock.com/?rid=308466022
অ্যামাজন কিন্ডেলhttps://kdp.amazon.com
ফাইবারFiver.com

ছবি বিক্রি করে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

shutterstock.com

shutterstock একটি ছবি বিক্রি মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইট যা ছবি, গ্রাফিক্স ও ভিডিও বিক্রি করার সুযোগ করে দেয়। এটির জনপ্রিয়তা দেখে অনুমান করা যায় এতে  এক মিলিয়নের বেশি নতুন ছবি আপলোড করা হয়।

কাজের ধরন

যেহেতু এটি একটি ছবি বিক্রির মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইট তাই এখানে আপনি ছবি আপলোড করে অনলাইনে ইনকাম করতে পারবেন।

এখানে যুক্ত হয়ে কাজ করা খুবই সহজ এবং লাভজনক।

এখানে যত ছবি বিক্রি বা ডাউনলোড হবে তার ওপর আপনি রয়েলটি পাবেন এবং আপনার টাকা ইনকাম হবে।

সুবিধা ও অসুবিধা

এই কাজটি আপনি শূন্য বিনিয়োগে শুরু করতে পারবেন আপনার অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল দিয়ে।

তবে ওয়েবসাইটটি থেকে ফটো আপলোডের সমস্ত  গাইডলাইন গুলি পড়ে নেবেন এবং সেই অনুযায়ী ছবি আপলোড করবেন।

এখানে আপনাকে টাকা তুলতে মিনিমাম ৩৫ ডলার জমাতে হবে এবং Skrill অথবা পেপাল অ্যাকাউন্ট ওপেন করতে হবে।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

https://submit.shutterstock.com/?rid=308466022

https://upload.picxy.com/signup/?ref=FZELSPY

ভিডিও বানিয়ে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

youtube.com

বর্তমান সময়ে ইউটিউব এবং ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করা যায় এই সম্বন্ধে জানে না এমন কেউ নেই। তবুও আমি এটি পুনরায় শেয়ার করছি কারণ এখানে আপনি শূন্য ইনভেস্টে ভিডিও আপলোড করে টাকা ইনকাম শুরু করতে পারবেন।

কাজের ধরন

ভিডিও বানিয়ে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট মানে বুঝতেই পারছেন এখানে আপনি ভিডিও বানিয়ে আপলোড করলে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

সুবিধা ও অসুবিধা

বর্তমানে এখানে কম্পিটিশন অনেক বেড়ে গিয়েছে। এবং এখান থেকে টাকা পেতে হলে আপনাকে ১০০০ সাবস্ক্রাইবার এবং 4 হাজার ঘন্টা ওয়াচ টাইম সম্পূর্ণ করতে হবে তারপর আপনি এখান থেকে টাকা আয় করতে পারবেন।

যদিও আপনি শূন্য টাকা ইনভেস্ট করে শুরু করতে পারবেন।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

youtube.com

লেখালেখি করে আয় করার ওয়েবসাইট

Blogger.com

ব্লগার হলো একটি গুগলের একটি নিজস্ব টাকা আয় করার ওয়েবসাইট। এটি একটি লেখালেখি করে আয় করার ওয়েবসাইট বা অনলাইন ব্লগিং প্ল্যাটফর্ম৷ আপনি এখানে ব্লগ তৈরি করতে, লিখতে এবং প্রকাশ করতে ব্যবহার করতে পারবেন।

তাছাড়া এটি আপনাকে আপনার ব্লগে ছবি, ভিডিও এবং আরও অনেক কিছু আপলোড এবং প্রকাশ করতে দেয়।

কাজের ধরন

এই ওয়েবসাইটে আপনাকে আপনার নিজস্ব ওয়েবসাইট বানিয়ে ব্লগ বা আর্টিকেল পোস্ট করতে হবে। এবং তাতে ভিজিটর নিয়ে আসতে হবে।

কিছুদিন পর বেশ কিছু আর্টিকেল লেখা হয়ে গেলে এডসেন্স এর জন্য আবেদন বা এপ্লাই করতে হবে।

এডসেন্স অ্যাপ্রুভ বা এডসেন্স এর উপযুক্ত হয়ে গেলে এডসেন্স আপনার সাইটে বিজ্ঞাপন দেখবে। ওই অ্যাড যত বেশি আপনার সাইটের ভিজিটররা দেখবে তত বেশি আপনার ইনকাম হবে।

সুবিধা ও অসুবিধা

ব্লগার ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে নিজস্ব ওয়েবসাইট তৈরি করে ইনকাম শুরু করে খুবই সহজ।

তবে প্রথমের দিকে আপনাকে মিনিমাম ১০০ টি আর্টিকেল পোস্ট করতে হবে। তাই আপনাকে আর্টিকেল লিখে পোস্ট করতে কিছু পরিশ্রম করতে হবে।

আমি যতদূর বুঝেছি ব্লগিং হলো সমস্ত অনলাইন ইনকামের পদ্ধতিগুলির মধ্যে সবচেয়ে সেরা পদ্ধতি।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

blogger.com

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা আয় করার ওয়েবসাইট

Amazon Associates

Amazon Associates হল একটি অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং প্রোগ্রাম যা ওয়েবসাইটের মালিক এবং ইউটিউবারদের অ্যাফিলিয়েট লিঙ্ক তৈরি করতে দেয়।

ওয়েবসাইটের বা youtube এর দর্শক বা ভিজিটররা  যখন Amazon থেকে পণ্য ক্রয় করার জন্য এই লিংকে ক্লিক করে তখন তার রেফারেল ফি উপার্জন করতে পারে।

এটি যোগদানের জন্য সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এবং ব্যবহার করা সহজ।

কাজের ধরন

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কী? অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং হল একটি বিজ্ঞাপনের মডেল যেখানে একটি কোম্পানি তৃতীয় পক্ষের প্রকাশকদের ট্রাফিক তৈরি করতে বা কোম্পানির পণ্য ও পরিষেবার দিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য টাকা দেয়।

ধরুন আপনার একটি ইউটিউব চ্যানেল এবং ওয়েবসাইট আছে। এই ইউটিউব চ্যানেল এবং ওয়েব সাইটে যে ভিজিটর বা ট্রাফিক আসবে তাদেরকে আপনাকে অন্য কোন কোম্পানির পণ্য প্রমোট করতে হবে।

এক্ষেত্রে আপনি অ্যামাজনের কোন পণ্যের লিংক বা বিজ্ঞাপন আপনার সাইটটিতে বা youtube চ্যানেলে প্রচার করলে কোম্পানি আপনাকে টাকা দেবে।

সুবিধা ও অসুবিধা

বর্তমানে আমাজন সমস্ত দেশে উপলব্ধ নেই তাই আমাজনের অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম বা অ্যামাজন অ্যাসোসিয়েটও উপলব্ধ নেই।

অ্যামাজন বর্তমানে আমেরিকা, UAE, কানাডা, যুক্তরাষ্ট্র, ভারত, ব্রাজিল সহ কয়েকটি দেশের উপলব্ধ।

আপনি যদি আপনার ওয়েবসাইটটি এই দেশগুলিকে টার্গেট করে বা ওই দেশের ভাষায় বানান তবে সেই দেশের অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রামটিতে যুক্ত হতে হবে।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

https://affiliate-program.amazon.com/

ই-বুক বিক্রি করে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

Amazon Kindle

অ্যামাজন কিন্ডল অ্যাপ হল এমন একটি সফ্টওয়্যার যেখনে অ্যামাজন থেকে ইবুক কিনে ডাউনলোড করতে এবং পড়তে পারা যায়।

কাজের ধরন

আপনি যদি ওখানে আপনার তৈরি করা নিজস্ব ই-বুক আপলোড করেন আপনিও ওখানে ইনকাম করতে পারবেন।

কি বিষয়ে ই-বুক তৈরি করবেন? আপনি আপনার পছন্দমত যে কোন বিষয়(কম্পিউটার, পড়াশোনা, রান্না ইত্যাদি) নিয়ে ই-বুক তৈরি করতে পারবেন।

সুবিধা ও অসুবিধা

সাধারণত কম্পিটিশন বেশি হয় প্রথমের দিকের লিস্ট (top 100) যারা থাকে তাদের ebook বেশি বিক্রি হয়। এখানে যুক্ত হবার পর আপনি আরো কিছু জানতে পারবেন।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

https://kdp.amazon.com

কোর্স বিক্রি করে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

Udemy.com

Udemy হল একটি বিশাল উন্মুক্ত অনলাইন কোর্স প্রদানকারী, অর্থাৎ এখান থেকে অনলাইন কোর্স কেনা যায়।

কাজের ধরন

কোর্স কি সেটা আপনি জানেনই। যদি আপনি কোন বিষয়ে অভিজ্ঞ হয়ে থাকেন সেই বিষয়ে কোর্স বানিয়ে অনলাইনে বিক্রি করতে পারবেন।

ধরুন আপনি কম্পিউটারের সম্বন্ধে বেশ অভিজ্ঞ ফলে আপনি কম্পিউটারের সেই বিষয়টিকে নিয়ে কোর্স বানিয়ে আপলোড করে বেশ ভালো মানের ইনকাম করে নিতে পারবেন।

সুবিধা ও অসুবিধা

Udemy আপনার কোর্স প্রচার করে। আপনি নিজে প্রচার না করে একটি প্যাসিভ ইনকাম করতে পারেন।

এটি এমন প্রশিক্ষকদের জন্য আদর্শ যারা মার্কেটিং বা সমস্ত প্রযুক্তিগত জিনিসের সাথে মোকাবিলা করতে খুব বেশি ফোকাস করতে চান না।

Udemy আপনার কোর্স ভারী ছাড় দিয়ে বিক্রি করে। একটি উল্লেখযোগ্য আয় উপার্জন করার জন্য, আপনাকে প্রচুর বিক্রি করতে হবে।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

https://www.udemy.com/teaching/?ref=teach_header

ফ্রিল্যান্সিং করে টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

Fiver.com

Fiver ডিজিটাল পরিষেবাগুলির জন্য বিশ্বের সবচেয়ে বড় মার্কেটপ্লেস। এখানে ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়েই ডিজিটাল পরিসেবা ক্রয় ও বিক্রয় করতে পারে।

কাজের ধরন

আপনি যদি কোন ডিজিটাল পরিষেবা দিয়ে দিতে পারেন তবে আপনিও এখান থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

যেমন আপনি যদি ডিজিটাল মার্কেটিং, লোগো ডিজাইন, ওয়ার্ডপ্রেস ওয়েবসাইট বানানো ইত্যাদি বিষয়ে জেনে থাকেন তবে আপনিও এই কাজগুলি করে ইনকাম করতে পারবেন।

সুবিধা ও অসুবিধা

যদি এখানে ভালোভাবে কাজ করতে পারেন তাহলে প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

যদিও এখানে সার্ভিস বিক্রি করতে প্রায়ই কুড়ি পার্সেন্ট বা তারও বেশি কমিশন দিতে হয়।

তাছাড়া সময়ের সাথে সাথে কম্পিটিশন অনেক বেড়ে গিয়েছে। নতুন যারা যুক্ত হবেন তাদের জন্য এটা অসুবিধা হতে পারে।

আপনি যদি অন্য কোন কাজের সাথে এটি করেন তবে এটি আপনার জন্য উপযুক্ত অন্যথা নয়।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

Fiver.com

টাকা আয় করার বাংলাদেশী ওয়েবসাইট

dealancer.com

ফাইবারের মতো এটিও একটি জনপ্রিয় ফ্রিল্যান্সিং ওয়েবসাইট। তবে এটি একটি বাংলাদেশী ওয়েবসাইট।

কাজের ধরন

যেহেতু এটিও একটি ফ্রিল্যান্সিং ওয়েবসাইট। এখানে আপনি ফাইবারের সমস্ত কাজ করতে পারবেন।

সুবিধা ও অসুবিধা

এখানে ফাইবারের অপেক্ষা কম্পিটিশন কম। বাংলাদেশীদের জন্য এটি একটি ভালো ফ্রিল্যান্সিং ওয়েবসাইট।

যুক্ত হবার লিঙ্ক:

https://dealancer.com/

অনলাইন আয় সম্পর্কিত প্রায়সই জিজ্ঞাসিত প্রশ্নাবলী

আমি কিভাবে অনলাইন আয় করতে পারি?

আপনি আপনার দক্ষতা অনুযায়ী যেকোনো একটি অনলাইন ইনকামের পদ্ধতি ও ওয়েবসাইটের মাধ্যমে অনলাইনে বেশ ভালো মানের আয় করতে পারবেন।
যেমন- ব্লগিং, ফ্রিল্যান্সিং, ছবি বিক্রি, অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং ইত্যাদি।

অর্থ উপার্জনের জন্য কোন ওয়েবসাইটটি সেরা?

প্রথমে আপনাকে অনলাইনে অর্থ উপার্জন করার জন্য নির্দিষ্ট একটি পদ্ধতি নির্বাচন করতে হবে। যদি আপনি ব্লগিং করতে চান তবে তবে আপনি blogger.com ওয়েবসাইটটি ব্যবহার করতে পারেন।

কিভাবে আমি অনলাইনে প্রতিদিন $100 উপার্জন করতে পারি?

যদি আপনি প্রতিদিন ১০০ ডলার বা প্রায় সাত থেকে আট হাজার টাকা ইনকাম করতে চান তবে আমি আপনাকে বলব আপনি ব্লগিং শুরু করুন।

আমি কিভাবে Google এর মাধ্যমে আয় করতে পারি?

যদি আপনি ব্লগার বা ইউটিউবার হন তবে আপনি আপনার সাইটটি গুগল এডসেন্স এর সাথে যুক্ত করুন। গুগল এডসেন্স google এর একটি ওয়েবসাইট। ফলে আপনার আয় গুগল থেকেই হবে।

আমি কি আমার ফোন দিয়ে অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে পারি?

অবশ্যই। আমি যখন অনলাইনে অর্থ উপার্জন শুরু করেছিলাম তখন আমার কাছে কোন কম্পিউটার ছিলো না। তাই আপনিও মোবাইল থেকেই অর্থ উপার্জন শুরু করতে পারেন।

বিনিয়োগ ছাড়া অর্থ উপার্জনের জন্য কোন ওয়েবসাইটটি সেরা?

বিনিয়োগ তো আপনাকে করতেই হবে তা সময় হোক বা টাকা। যদি আপনার টাকা বিনিয়োগ করার তেমন কোন টাকা নেই তবুও আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন, যদি বলেন আমি সময় বিনিয়োগ করতে চাই না তবে অর্থ উপার্জনের তেমন কোন ওয়েবসাইট নেই।

4/5 - (8 votes)

হ্যালো আমি অমিত মন্ডল। বর্তমানে ব্লগিং এর সাথে ইউটিউবেও কাজ করি। লেখালেখির মাধ্যমে নিজেকে পরিবর্তন করছি। বর্তমানে নতুন কিছু শেখার সাথে সাথে অন্যকেও শেখানোর চেষ্টা করছি।

Leave a Comment